Wednesday , November 6 2019
ব্রেকিং নিউজ :

Home / আন্তর্জাতিক / পাকিস্তান দিল্লিতে বিষাক্ত গ্যাস ছড়াচ্ছে, দাবি বিজেপি নেতার

পাকিস্তান দিল্লিতে বিষাক্ত গ্যাস ছড়াচ্ছে, দাবি বিজেপি নেতার

খােলাবাজার ২৪,বুধবার,০৬নভেম্বর,২০১৯ঃ দূষিত বাতাসে ঢেকে গিয়েছে ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লি। আর এর কারণ হিসেবে প্রতিবেশী দেশ পাকিস্তান এবং চীনের উপর তার দায় চাপালেন ভারতের উত্তরপ্রদেশের বিজেপি নেতা বিনীত আগরওয়াল সারদা। তার দাবি, ভারতকে দেখে ঘাবড়ে গিয়ে পাকিস্তান আর চীন রাজধানী নয়াদিল্লিতে বিষাক্ত গ্যাস ছড়িয়ে দিয়েছে।

আসন্ন ঘূর্ণিঝড়ের কারণে মঙ্গলবার থেকে নয়াদিল্লির দূষণ একটু একটু করে কমতে শুরু করেছে। তবে এখনও বিপদ পুরোপুরি কাটেনি বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। তবে ভারতের রাজধানীর এই ভয়াবহ দূষণ নিয়ে দেশটির রাজনীতিকরাও পরস্পরকে দোষারোপ করে যাচ্ছেন।

এসবের মধ্যেই মঙ্গলবার ভারতীয় সংবাদ সংস্থা এএনআই-কে বিজেপি নেতা বিনীত আগরওয়াল সারদা বলেন,‘নয়াদিল্লিতে যে বিষাক্ত হাওয়া বইছে, যে বিষাক্ত গ্যাসে ঢেকে গিয়েছে চারিদিক, হতে পারে কোনও প্রতিবেশী দেশ তা এখানে ছড়িয়ে দিয়েছে। আমাদের যারা ভয় পায়, তারাই এই কাণ্ড ঘটিয়ে থাকতে পারে। আমার তো মনে হয় চীন এবং পাকিস্তানই আমাদের ভয় পায়।’

ভারতে এই বিষাক্ত গ্যাস পাকিস্তান ছড়িয়ে দিয়েছে কি না, তা অবশ্যই খতিয়ে দেখা উচিত বলেও মত দেন তিনি।

বিজেপির এই নেতার দাবি, টানা দ্বিতীয়বার নরেন্দ্র মোদি-অমিত শাহ জুটির নেতৃত্বে ভারতে বিজেপি জোট সরকার গঠন করায় পাকিস্তান ঘাবড়ে গিয়েছে। তাই (পাকিস্তান) এই ধরণের ‘আচরণ করছে’। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে মহাভারতের ‘কৃষ্ণ’ এবং কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে ‘অর্জুন’-এর সঙ্গেও তুলনা করেন তিনি।

তিনি আরো দাবি করেন,‘আজ পর্যন্ত যত বার যুদ্ধ হয়েছে, ভারতের সামনে ‘মুখ থুবড়ে’ পড়েছে পাকিস্তান। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং অমিত শাহ আবারো ক্ষমতায় আসার পর আরও হতাশ হয়ে পড়েছে ওই দেশ। কৃষ্ণ এবং অর্জুন মিলে ভারতের সব কিছু সামলাচ্ছেন।’

নয়াদিল্লির দমবন্ধ করা পরিস্থিতির জন্য শুরু থেকেই প্রতিবেশী দুই রাজ্য হরিয়ানা এবং পঞ্জাবকে দায়ী করে আসছেন দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। সেখানে ফসলের গোড়া পোড়ানোতেই গোটা দিল্লি ধোঁয়ায় ঢেকে গিয়েছে বলে অভিযোগ তার। কিন্তু তা মানতে রাজি নন বিজেপি নেতা বিনীত। কৃষকরা দেশের মেরুদণ্ড, তাদের এ ভাবে দোষারোপ করা উচিত নয় বলে মত তার।

Print Friendly, PDF & Email

About kholabazar 24