Saturday , October 24 2020
ব্রেকিং নিউজ :

Home / সারাদেশ / রাজশাহীতে মেয়রের বিরুদ্ধে পাহাড়সম অভিযোগ

রাজশাহীতে মেয়রের বিরুদ্ধে পাহাড়সম অভিযোগ

খােলাবাজার২৪,সোমবার,২১ সেপ্টেম্বর,২০২০:  রাজশাহী প্রতিনিধি :  রাজশাহীর পবা উপজেলার কাটাখালী পৌরসভার মেয়র আব্বাস আলীর বিরুদ্ধে হত্যা, আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের মারপিট, জামায়াত সম্পৃক্ততা, মাদক-সন্ত্রাসের সাথে সংশ্লিষ্টতা, সরকারী কাজে নানারকম অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে।

সোমবার বেলা ১১টায় রাজশাহী প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে এসব অভিযোগ করেছেন আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, পবা উপজেলা আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক এ্যাডভোকেট জহুরুল ইসলাম।

লিখিত বক্তব্যে তিনি অভিযোগ করে বলেন, কাটাখালী পৌরসভার মেয়র আব্বাস আলী হত্যা মামলার আসামি। তিনি আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের মারপিট করেন। ২০১০ সালে জামায়াত নেতার টাকায় বিদ্র্রোহী প্রার্থী হয়ে নিবাচনেও অংশ নিয়েছিলেন। এছাড়াও তিনি ও তার লোকজন মাদক সন্ত্রাসের সাথে জড়িত। এমনকি পৌরসভার এ্যাম্বুলেন্সটি জনগণের কাজে ব্যবহার না করে মাদক পরিবহণের কাজে ব্যবহার করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে আরও অভিযোগ করা হয়, পৌর মেয়র হাট-ঘাট দখল, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগ বাণিজ্য করে লক্ষ লক্ষ টাকা আত্মসাৎ, পৌরসভার কাউন্সিলর-কর্মচারীদের ভাতা বঞ্চিত করে নিজের ইচ্ছেমতো খরচ করেন। এমনকি তিনি পৌর মেয়র হলেও মন্ত্রীদের মতো প্রটোকল নিয়ে চলাফেরা করেন। এছাড়া তিনি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মাদকের আখড়া তৈরি করে রাতভর নেশা করেন। আব্বাস আলী সরকারী কাজে আরো নানারকম অনিয়ম ও দুর্নীতি করে অঢেল সম্পদের মালিক হয়েছেন। যেসবের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট দপ্তরে অভিযোগ দিয়েও কোনো ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। সংবাদ সম্মেলনে আব্বাস আলীর এসব কর্মকাণ্ডের তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানানো হয়।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের উপস্থিত ছিলেন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট শরিফুল ইসলাম শরিফ, পবা উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল কুদ্দুস, জেলা যুব মহিলা লীগের সভাপতি অধ্যাপিকা নার্গিস আক্তার শেলী, কাটাখালি পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর খোকনুজ্জামান মাসুদ, ৫ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল মোত্তালিব, পবা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সামা, কাটাখালী পৌরসভা যুবলীগের আহবায়ক জনি ইসলাম, যুগ্ম আহবায়ক শরিয়ত উল্লাহ, সাইদুর রহমান প্রমুখ।

এ বিষয়ে জানতে যোগাযোগ করা হলে অভিযুক্ত কাটাখালী পৌরসভার মেয়র আব্বাস আলী বলেন, কারো নামে অভিযোগ উঠতেই পারে। তার মানে সেগুলো সত্য নয়। এসব অভিযোগ ভুয়া ও মিথ্যা।

Print Friendly, PDF & Email

About kholabazar 24